অনন্ত অন্ধকার

১০ ই জুন ২০১৩,
ডিওএইচএস।

অনন্ত অন্ধকারে ডুব দিয়েছে মন,
ক্ষণ গুনে গুনে খসে পড়েছে
আঙুলের কড়। ধর পাকড়াও করে
স্বপ্নদের দমানো যায়না। আয়নার
আলোতে স্পষ্ট থেকে স্পষ্টতর হয়ে
উঠে তোমার ছবি, তোমার মায়া।
ছায়া পড়ে চেহারায়, ঠোঁটে। জুটেনা
দুপুরের খাবার। আবার এবং আবার
আমি তোমাকে খুজতে বের হই…


আধারের আড়ালে আলো থাকে
হয়তো। নয়তো আধারই থাকে
আরো। গাঢ় সে আধারে পা দেয়
ডুব, চুপ করে তলিয়ে যায় পথে।
হাতে বাতি থাকেনা কোনো। বুনো
বিড়ালের মতো এগিয়ে যাওয়া,
হাওয়া এসে তালি বাজায় পেটে।
হেটে কতোদূর যাওয়া যায় আর!
যার খুজে পথে নামা, ক্ষমা কি সে
করবে? ধরবে কি জড়িয়ে আবার?
আবার ওহ! খাবার এবং খাবার
খুজতে বের হই আমি। তুমি…

Leave a Reply